কোভিডের ৬ মাস তো হয়ে গেল, সামনে কী নিয়ে রিপোর্ট করবেন?

কোভিড-১৯ সংকটের ছয় মাস পেরিয়ে গেছে। মহামারির প্রভাবে আমাদের সমাজে দেখা গেছে মৌলিক কিছু পরিবর্তন। তৈরি হয়েছে নতুন বাস্তবতা। এই পরিস্থিতিতে কিভাবে আগামীতে কাজ করবেন অনুসন্ধানী সাংবাদিকরা? কোন বিষয়গুলোর দিকে মনোযোগ দেবেন? কিভাবে তথ্য পাওয়ার নতুন সোর্স ও উপায় গড়ে তুলবেন? এই লেখায় পড়ুন অভিজ্ঞ সাংবাদিকদের কিছু পরামর্শ:

দেশ ধরে ধরে বিশ্ব ব্যাংকের কোভিড-১৯ অর্থায়ন ট্র্যাক করবেন যেভাবে

English

কোভিড-১৯ মহামারি মোকাবিলার জন্য বিভিন্ন দেশের সরকারকে অর্থ সহায়তা দিয়েছে বিশ্ব ব্যাংক। এখন পর্যন্ত ১০০টিরও বেশি দেশে দেওয়া হয়েছে প্রায় ১৪ বিলিয়ন ডলার। কিন্তু এই অর্থ কিভাবে খরচ করা হচ্ছে? কাদের সঙ্গে চুক্তি করা হচ্ছে? এই টাকার ব্যবহার নিয়ে যদি অনুসন্ধান করতে চান, তাহলে জাতীয় পর্যায়ের ক্রয় সংক্রান্ত নথির পাশাপাশি বিশ্ব ব্যাংকের অনলাইন ডেটাও আপনার কাজে আসবে।

এই রিসোর্সটি তৈরি করা হয়েছে এমন অনুসন্ধানকে অনুপ্রাণিত করার জন্য। এখানে আমরা দেখাবো, কিভাবে বিশ্ব ব্যাংকের রেকর্ড সিস্টেম নিয়ে কাজ করতে হয়। জাতীয় পর্যায়ের কেনাকাটা সংক্রান্ত নথিগুলোর সঙ্গে বিশ্ব ব্যাংকের রেকর্ডগুলো মিলিয়ে গবেষণা করার কিছু পদ্ধতির কথাও এখানে আলোচনা করা হয়েছে।

উন্নয়নশীল দেশগুলোর জন্য বিশ্ব ব্যাংকই সবচে বড় আন্তর্জাতিক দাতা। কিন্তু আরো অনেক প্রতিষ্ঠান (যেমন ইন্টার-আমেরিকান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক, ইন্টারন্যাশনাল মনেটারি ফান্ড (আইএমএফ)) থেকেও বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার অর্থসাহায্য দেওয়া হচ্ছে। এ নিয়ে বিস্তারিত দেখুন গ্লোবাল ডেভেলপমেন্ট মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম, ডেভেক্সের এই প্রবন্ধে।)

এর সঙ্গে যদি অন্যান্য দেশ ও ব্যক্তি মালিকানার ফাউন্ডেশন থেকে আসা অর্থসাহায্য যোগ করা হয়; তাহলে ডেভেক্সের তথ্য অনুসারে, “গত জানুয়ারি থেকে, কোভিড-১৯ মোকাবিলায় স্বল্প ও দীর্ঘমেয়াদী প্রকল্পে সাহায্য দেওয়া হয়েছে ২০ ট্রিলিয়ন ডলারের বেশি।” দাতাগোষ্ঠীর অর্থসাহায্য নিয়ে তথ্যের জন্য দেখুন কোভিড-১৯ ফান্ডিং ট্র্যাকিং প্রোটোটাইপ (বর্ণনা পাবেন এখানে), এবং ইন্টারন্যাশনাল অ্যাকাউন্টিবিলিটি প্রজেক্টের আর্লি ওয়ার্নিং সিস্টেম কোভিড-১৯ ডিএফআই ট্র্যাকার।

কোভিড-১৯ মহামারিতে অনেক ক্ষেত্রে অর্থ সাহায্য দেওয়া হয়েছে জরুরি ভিত্তিতে। এই দিকটি বিশেষভাবে মাথায় রেখে, এবং এই তহবিল নিয়ে নয়ছয় হতে পারে, এমন আশঙ্কা থেকে জাতীয় পর্যায়ের ক্রয় ব্যবস্থা আরো উন্নত করার পদক্ষেপ নিয়েছে বিশ্ব ব্যাংক, আইএমএফ ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানগুলো। কার্যকর ও শক্ত পদক্ষেপ নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছে কিছু বেসরকারী সংগঠনও।
বিশ্ব ব্যাংকের কোভিড-১৯ প্রকল্প অনুসরণ এবং কিছু স্টোরি আইডিয়া
কোভিড-১৯ সামাল দিতে যে টাকা খরচ হচ্ছে, তা এখন সবার মনোযোগের কেন্দ্রবিন্দুতে। শুধু বিশ্ব ব্যাংকের নথিপত্র ঘেঁটেই এধরনের অনেক প্রতিবেদন করা সম্ভব। যেমন:

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় পাওয়া অর্থ নিয়ে কী ধরনের প্রতারণা ও দুর্নীতি হচ্ছে? আপনার দেশে এই অর্থ দিয়ে কী করার পরিকল্পনা করা হয়েছে? বিশ্ব ব্যাংকের পক্ষ থেকে কেমন লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে, এবং সেক্ষেত্রে আপনার দেশ কেমন করছে?

জিআইজেএন-এর নতুন অনলাইন সিরিজ আসছে সেপ্টেম্বর থেকে

ইনভেস্টিগেটিং দ্য প্যানডেমিক শীর্ষক ওয়েবিনার সিরিজের পর আগামী সেপ্টেম্বরে নতুন অনলাইন সিরিজ আয়োজন করতে যাচ্ছে জিআইজেএন। এখানে থাকবে ডেটা সাংবাদিকতা, ওপেন সোর্স অনুসন্ধান, অর্থনৈতিকভাবে টিকে থাকার কৌশল, ওষুধ ও স্বাস্থ্য বিষয়ক অনুসন্ধান, নির্বাচন কাভারেজ ও আরো অনেক বিষয়ে প্রশিক্ষণ ও আলোচনা।