অনুসন্ধানী সাংবাদিকতার যত ম্যানুয়াল

English

আপনি কি টিপস, টুলস এবং টিউটোরিয়াল খুঁজছেন? রিপোর্টার হিসেবে অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা করতে, শিক্ষক হিসেবে এই বিষয় পড়াতে অথবা শিক্ষার্থী হিসেবে বিষয়টিকে গভীরভাবে জানতে – এই রিসোর্স আপনার কাজে লাগবে, সন্দেহ নেই। নিচের সহায়িকাগুলো অনুসন্ধানী ও ডেটা সাংবাদিকতা নিয়ে। এখানে পাবেন সারা বিশ্ব থেকে সংগ্রহ করা কেস স্টাডি আর উদাহরণ। গাইডগুলোর বেশীরভাগই পাওয়া যায় বিনামূল্যে।

চাইলে চীনা এবং স্প্যানিশ ভাষার গাইডও পেতে পারেন। আর আপনার কাছে শেয়ার করার মত কিছু থাকলে আমাদের ইমেইল করুন এবং জানান।


অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা

kas-guideইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম ম্যানুয়াল: এটি তৈরি করেছে জার্মান ফাউন্ডেশন কনরাড অ্যাডেনোয়ার স্টিফটুং। বেশকিছু কেস স্টাডি ও অনুশীলনসহ এটি প্রথম বের করা হয় মূলত আফ্রিকার সাংবাদিকদের জন্য সাংবাদিকতার হ্যান্ডবুক হিসেবে। তবে হ্যান্ডবুকটির সর্বশেষ সংস্করণ ডিজাইন করা হয়েছে সেইসব সাংবাদিকদের জন্যে যারা কাজ করেন সম্পদের সীমাবদ্ধতা, দমনমূলক গণমাধ্যম আইন এবং স্বচ্ছতার অভাব রয়েছে – এমন পরিবেশে। এটি বাহাসা মঙ্গোলীয় ভাষায় অনুদিত হয়েছে। এই গাইডের একটি ইন্টার‌অ্যাক্টিভ ওয়েবসাইটও রয়েছে।

ডিগিং ডিপার: বলকান অঞ্চলের অনুসন্ধানী সাংবাদিকদের জন্য নির্দেশিকা: এটি প্রকাশ করেছে বলকান ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং নেটওয়ার্ক (বিআইআরএন)। কীভাবে নথিপত্র এবং তথ্য-উপাত্তের গভীরে যেতে হয়, এই সহায়িকায় সেদিকেই দৃষ্টি দেয়া হয়েছে। বইটি লিখেছেন শীলা করোনেল। তিনি কলাম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের স্ট্যাবিল সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম এর পরিচালক। এখানে পাবেন অনুসন্ধানী রিপোর্টিংয়ের বেশ কিছু টিপস ও কলা-কৌশল। ভাষা: ইংরেজি, ম্যাসিডোনীয়

Follow Money Englishফলো দ্যা মানি: এ ডিজিটাল গাইড টু ট্র্যাকিং করাপশন: বিনামূল্যের এই হ্যান্ডবুক প্রকাশ করেছে ইন্টারন্যাশনাল সেন্টার ফর জার্নালিস্টস। ভাষা: ইংরেজি, রাশিয়ান, জর্জীয়

গ্লোবাল ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম কেসবুক: এই কেসবুকে প্রেক্ষাপটসহ বেশকিছু অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের উদাহরন আছে। সেখানে সাংবাদিকরা কীভাবে গবেষণা করেছেন এবং প্রতিবেদন লিখেছেন তাও তুলে ধরা হয়েছে বইটিতে। ভাষা: ইংরেজি

গ্লোবাল ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম: স্ট্র্যাটেজিস ফর সাপোর্ট: এই নির্দেশিকায় একটি জরিপ ও আলোচনার উপর ভিত্তি করে বিশ্বব্যাপী অনুসন্ধানী সাংবাদিকতার বিস্তার সম্পর্কে লিখেছেন জিআইজেএনের ডেভিড ই কাপলান। এখানে অলাভজনক অনুসন্ধানী উদ্যোগের কাঠামো এবং অর্থায়নের উৎস সম্পর্কে টিপস রয়েছে। আর পাবেন বিশ্বব্যাপী অনুসন্ধানী দলগুলোর একটি তালিকা। এটি প্রকাশ করেছে সেন্টার ফর ইন্টারন্যাশনাল মিডিয়া অ্যাসিসটেন্স-সিআইএমএ। ভাষা: ইংরেজি

গাইড টু ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম: একজন অনুসন্ধানী প্রতিবেদক কোথায় তার রিপোর্টের বিষয়বস্তু খুঁজে পাবেন,  কীভাবে নিবেন অনুসন্ধানী সাক্ষাৎকার, কোথায় পাবেন দরকারী নথিপত্র, গল্পের কাঠামো তৈরী করবেন কীভাবে আর তাকে জনসাধারণের কাছে পৌঁছে দিবেন কেমন করে? একটি অনুসন্ধানের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত পুরো প্রক্রিয়ায়ে যা যা করতে হয়, তার সবই তুলে ধরা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের পাবলিক ব্রডকাস্টিং সার্ভিসের ২০০৭ সালের এই সিরিজে। ভাষা: ইংরেজি

হিডেন সিনারিও, লিখেছেন লুক সেনজারস এবং মার্ক লি হান্টার [কেনার জন্য পাওয়া যাচ্ছে সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজমে]। এতে দেখানো হয়েছে, গল্প বলার ধরণ কীভাবে ঠিক করে দেয় অনুসন্ধানী সাংবাদিকতায় ফোকাস এবং কাঠামো কী হবে। ভাষা: ইংরেজি।ইন্ট্রোডাকশন টু ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং, লিখেছেন ব্রান্ট হাউস্টন (পয়েন্টার নিউজ ইউনিভার্সিটি)। এই স্ব-পরিচালিত অনলাইন কোর্সে খরচ পড়বে ২৯.৯৫ মার্কিন ডলার।

religionইনভেস্টিগেটিং রিলিজিয়ন: অ্যান ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টার্স গাইড, যৌথভাবে লিখেছেন ডেবরা এল ম্যাসন এবং অ্যামি বি হোয়াইট [বিক্রি করছে আইআরই]। ভাষা: ইংরেজি

ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম ম্যানুয়াল: প্রকাশ করেছে ফোরাম ফর আফ্রিকান ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টার্স (এফএআইআর)। এতে পাবেন অনুসন্ধানী টিপসের রীতিমত বিশাল এক ভান্ডার। আরো আছে স্বাস্থ্যখাত, নৈতিকতা এবং আফ্রিকার বেশকিছু কেস স্টাডি নিয়ে বিশেষ অধ্যায়। ভাষা: ইংরেজি, ফরাসী, পর্তুগীজ

ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিস্ট’স গাইড টু কোম্পানী অ্যাকাউন্ট, লিখেছেন রাজ বৈরোলিয়া। প্রকাশ করেছে সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম (ক্রয়ের জন্য পাওয়া যাচ্ছে)। নির্দেশিকাটি সেইসব অনুসন্ধানী সাংবাদিকদের জন্য যারা কোম্পানি অ্যাকাউন্ট (মূলত ট্রেডিং কোম্পানী) কিংবা ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রকৃত অবস্থা সম্পর্কে একটি পূর্নাঙ্গ ধারণা পেতে চান।

ইনভেস্টিগেটিভ অনলাইন সার্চ: ২০১১ সালে এটি প্রকাশ করে যুক্তরাজ্য ভিত্তিক সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম। এখানে আলোচনা করা হয়েছে অনলাইনে কীভাবে তথ্য খুঁজতে হয় এবং তার সত্যতা যাচাই করতে হয়। ভাষা: ইংরেজি

photographyইনভেস্টিগেটিভ ফটোগ্রাফি: সাপোর্টিং এ স্টোরি উইথ পিকচার্স, যৌথভাবে লিখেছেন সিজে ক্লার্ক, ড্যামিয়েন স্প্লিটারস এবং জুলিয়েট ফার্গুসন [ কিনতে পারবেন সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম থেকে]। ভাষা: ইংরেজি

ইনভেস্টিগেটিভ রিপোটার্স হ্যান্ডবুক, পঞ্চম সংস্করণ, লিখেছেন ব্রান্ট হাউস্টন এবং ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টার্স অ্যান্ড এডিটর্স। দুর্নীতি ও কেলেংকারি উন্মোচন সম্পর্কিত এই ধ্রুপদি নির্দেশিকা পাওয়া যাচ্ছে আইআরই বিক্রয় কেন্দ্রে। ভাষা: ইংরেজি

ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং: এ টুলকিট ফর রিপোর্টার্স: ২০০৯ সালে একশ’ সাত পৃষ্ঠার বইটি প্রকাশ করে ইউএস সেন্টার ফর ইন্টারন্যাশনাল প্রাইভেট এন্টারপ্রাইজ। এতে অর্থায়ন করে ইউএসএইড এবং আল-মাসরি আল-ইয়ুম ফর জার্নালিজম অ্যান্ড পাবলিকেশন। ভাষা: ইংরেজি

ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং ইন ইমার্জিং ডেমোক্রেসিস: মডেলস, চ্যালেঞ্জেস অ্যান্ড লেসনস লার্ন্ড: এটি অরগানাইজড ক্রাইম অ্যান্ড করাপশন রিপোর্টিং প্রজেক্ট, ওসিসিআরপির ড্রিউ সুলিভানের লেখা একটি নিবন্ধ। এখানে তিনি তুলে ধরেছেন কীভাবে একটি প্রকল্প ডিজাইন করতে হয়, তার গুণগত মান ঠিক রাখার উপায়, সেখানে কেন সম্পাদক প্রয়োজন, এবং সাংবাদিকের নিরাপত্তাসহ অনেক টিপস। এটি প্রকাশ করেছে সেন্টার ফর ইন্টারন্যাশনাল মিডিয়া অ্যাসিসট্যান্স। ভাষা: ইংরেজি

ম্যানুয়াল ফর আরব জার্নালিস্টস অন ফ্রিডম অব ইনফরমেশন এন্ড ইনভেস্টিগেটিভ রিপোটিং: জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচির অর্থায়নে আর্টিকেল নাইনটিন প্রকাশিত ২১ পৃষ্ঠার হ্যান্ডবুকটি বিনামূল্যে ডাউনলোড করা যায়। ভাষা: ইংরেজি, আরবি

রেইজিং হেল: এ সিটিজেন’স গাইড টু দ্যা ফাইন আর্ট অব ইনভেস্টিগেশন (পিডিএফ): বিশ্বের প্রথম অলাভজনক অনুসন্ধানী রিপোর্টিং কেন্দ্র দি সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং এই নির্দেশিকা প্রকাশ করেছে। এই নির্দেশিকার উদ্দেশ্য হলো কীভাবে “অনুসন্ধানের মাধ্যমে দুর্নীতি ও ক্ষমতার দুর্বলতা উন্মোচন করতে হয়,” সে বিষয়ে সাধারন মানুষকে প্রশিক্ষিত করা। ভাষা: ইংরেজি

unescoরিসার্চ ইন প্র্র্যাকক্টিস: গেট ইনফরম্যান্টস টু টক, গেট হার্ড ফ্যাক্টস এন্ড আনকভার অ্যাবিউজেস: লিখেছেন ক্যাথরিন বস এবং ডমিনিক স্ট্রেবেল (কেনার জন্য পাওয়া যাচ্ছে)। ভাষা: জার্মান।

স্টোরি বেইজড ইনকোয়ারি: অনুসন্ধানী রিপোর্টিংয়ের একটি বিস্তৃত নির্দেশিকা। লিখেছেন মার্ক হান্টার। তার সাথে ছিলেন ড্রিউ সুলিভান, পিয়া থসডেন, রানা সাবাগ এবং লুক সেনজার্স। ইউনেস্কোর অর্থায়নে প্রণীত এই ম্যানুয়ালে কেস স্টাডির মাধ্যমে গবেষণা, লেখা, মান নিয়ন্ত্রণ এবং প্রচারের কার্যকর পদ্ধতি ব্যাখ্যা করা হয়েছে। ভাষা: ইংরেজি; আরবি; চীনা; ফরাসি; রাশিয়ান; পর্তুগিজ; স্প্যানিশ।

দি স্টোরি টেলস দ্যা ফ্যাক্টস, লিখেছেন মার্ক লি হান্টার এবং লুক সেনজারস, (সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম থেকে কিনতে পারবেন)। এখানে গতিশীল, পাঠক টানতে সক্ষম এবং শক্তিশালী উপসংহারসহ বর্ণনামূলক প্রতিবেদন কীভাবে লিখতে হয়, তার কৌশল তুলে ধরা হয়েছে। ভাষা: ইংরেজি।

আন্ডারকভার রিপোর্টিং, এটি কোনো ম্যানুয়াল নয়, বরং একটি অনলাইন ডাটাবেজ এবং রিসোর্স সেন্টার। আন্ডারকাভার রিপোর্টিং: দ্যা ট্রুথ অ্যাবাউট ডিসেপশন বইয়ের জন্য করা গবেষণা থেকে এর জন্ম। সাইটে একশ’ বছরেরও বেশি পুরনো উদাহরণ অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

আ ওয়াচডগ’স গাইড টু ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং: এখানে আফ্রিকার রিপোর্টিংকে গুরুত্ব দেয়া হয়েছে। ২০০৫ সালের এই ইংরেজি ম্যানুয়ালে দৃষ্টি দেয়া হয়েছে ” অনুসন্ধানী সাংবাদিকতার উত্তম চর্চা এবং অনুসন্ধানে আগ্রহী সাংবাদিকদের জন্য বিদ্যমান চ্যালেঞ্জ” এর ওপর।” ভাষা: ইংরেজি

এক্সপোজিং দ্যা ট্রুথ: আ গাইড টু ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং ইন আলবেনিয়া: ৭৩ পৃষ্ঠার এই ম্যানুয়ালে রয়েছে বেশকিছু কেস স্টাডি, কার্যকর টিপস এবং কৌশল। এটি প্রকাশ করেছে ওএসসিই এবং বলকান ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং নেটওয়ার্ক। ভাষা: আলবেনীয়, ইংরেজি

স্ক্রিপ্ট ফর ইনভেস্টিগেশন: লিখেছেন মার্ক লি হান্টার ও লুক সেনজারস। এটি প্রকাশ করেছে জার্মানির নেটওয়ার্ক রিসার্চ। ভাষা: জার্মান

দি নিউজ ইনিশিয়েটিভ, গুগলের এই উদ্যোগে রয়েছে অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা বিষয়ক নয়-ধাপের কোর্স এবং গুগল টুল ব্যবহারের উপায়।

রিপোর্টিং ইন ইনডিজেনাস কমিউনিটিস: প্রকাশ ২০১২ সালে। লিখেছেন কানাডিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের প্রতিবেদক ডানকান ম্যাককিউ। আন্তর্জাতিকভাবে আদিবাসী জনগোষ্ঠী কাভার করার নানান প্রায়োগিক দিক সম্পর্কে জানা যাবে এখান থেকে। আরো জানতে দেখুন রিপোর্টারের চেকলিস্ট, একটি ব্লগ এবং ২০১৮ সালে ম্যাককিউর দেয়া একটি সাক্ষাৎকার


ডেটা সাংবাদিকতা

CARকম্পিউটার অ্যাসিসটেড রিপোর্টিং: আ কম্প্রিহেনসিভ প্রাইমার: লিখেছেন ফ্রেড ভ্যাল্যান্স-জোনস ও ডেভিড ম্যাককি [ক্রয়ের জন্য পাওয়া যাচ্ছে।) ভাষা: ইংরেজি

কম্পিউটার-অ্যাসিস্টেড রিপোর্টিং: আ প্র্যাকটিসাল গাইড: ব্রান্ট হাউস্টন লিখিত নির্দেশিকাটির চতুর্থ সংস্করণ এখন বাজারে কেনার জন্য পাওয়া যাচ্ছে। ভাষা: ইংরেজি

কম্পিউটার অ্যাসিসটেড রিসার্চ: ইনফরমেশন স্ট্র্যাটিজিস এন্ড টুলস ফর জার্নালিস্টস: লিখেছেন নোরা পল এবংক্যাথলিন এ হানসেন (আইআরই থেকে কিনতে পারবেন)। ভাষা: ইংরেজি

ইন্টারন্যাশনাল জার্নালিজম এডুকেশন কনসোর্টিয়াম: কম্পিউটার অ্যাসিসটেড এবং ডেটাভিত্তিক সাংবাদিকতার বিভিন্ন পাঠ্যসূচির লিঙ্ক ও বর্ণনা (বর্ণের ক্রমানুসারে বিশ্ববিদ্যালয়, পরে অধ্যাপকের নাম)।

ডেটা জার্নালিজম, হ্যান্ডবুকটি সেই সাংবাদিকদের জন্য, যারা সংখ্যাকে একের পর এক প্রশ্ন করে উত্তর বের করার দক্ষতা অর্জন করতে চায়। লিখেছেন, এলেনা ইগাওহারি এবং সিনথিয়া ও’মুরচু। প্রতিবেদনের তৈরির জন্য সংখ্যা বের করা ও তা ব্যবহারের মৌলিক কৌশল জানা যাবে এই ম্যানুয়াল থেকে। এটি প্রকাশ করেছে সেন্টার ফর ইনভেস্টিগেটিভ রিপোর্টিং। ভাষা: ইংরেজি

ডেটা জার্নালিজম হ্যান্ডবুক হচ্ছে একটি আন্তর্জাতিক, সহযোগিতামূলক প্রচেষ্টা, যার সাথে কয়েক ডজন ডেটা সাংবাদিকতা বিশেষজ্ঞ জড়িত। এখানে সংজ্ঞা, কেস স্টাডি এবং টিপসের মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে তথ্য-উপাত্ত প্রাপ্তি, তার ব্যবহার এবং বিশ্লেষণের উপায়। এটি ইউরোপীয় সাংবাদিকতা কেন্দ্র এবং ওপেন নলেজ ফাউন্ডেশনের একটি উদ্যোগ। ভাষা: আরবি, ইংরেজি, ফরাসী, রুশ এবং স্প্যানিশ। হ্যান্ডবুকটি আরো কয়েকটি ভাষায় অনুবাদ করা হচ্ছে।

handbookফ্লোয়িং ডেটা নির্মাণ করেছেন সংখ্যাতত্ত্ববিদ নাথান ইয়াউ। তিনি ডেটা পয়েন্টস: ভিজ্যুয়ালাইজেশন দ্যাট মিনস সামথিং এবং ভিজুয়ালাইজ দিস: দি ফ্লোয়িং ডাটা গাইড টু ডিজাইন, ভিজুয়ালাইজেশন এন্ড স্ট্যাটিসটিকস বই দুটির লেখক। ডেটা শিক্ষণ বিভাগে তার টিউটোরিয়াল, বই এবং তথ্য সম্পর্কিত নির্দেশিকাগুলোর লিঙ্ক রয়েছে।

ম্যাপিং ফর স্টোরিস: আ কম্পিউটার অ্যাসিসটেড রিপোর্টিং গাইড: যৌথভাবে লিখেছেন জেনিফার লাফলুর এবং অ্যান্ডি লেহরেন (আইআরই থেকে কেনা যাবে)। ভাষা: ইংরেজি

নোডএক্সএল ফর নেটওয়ার্ক এনালিসিস হচ্ছে নেটওয়ার্ক  গ্রাফ (নোডএক্সএল) অনুসন্ধানের জন্য বিনামূল্যে এক্সেল এবং ওপেন-সোর্স টেমপ্লেট ব্যবহারের প্রাথমিক পাঠ। এটি সংকলন করেছেন বিজ্ঞান বিষয়ক সাংবাদিক পিটার আলদুস

প্রিসিশিন জার্নালিজম: অা রিপোর্টার্স ইন্ট্রোডাকশন টু সোশ্যাল সায়েন্স মেথডস, লিখেছেন ফিলিপ মায়ার (ক্রয়ের জন্য পাওয়া যাচ্ছে)। ভাষা: ইংরেজি

সাধারণ ডেটা সাংবাদিকতার রিসোর্স সম্পর্কে আরও তথ্যের জন্য দেখুন, আমাদের ডেটা জার্নালিজম রিসোর্স পেইজ


শিক্ষকতা ও প্রশিক্ষণ

educationমডেল কারিকুলা ফর জার্নালিজম এডুকেশন: উন্নয়নশীল এবং উদীয়মান গণতান্ত্রিক দেশে সাংবাদিকতা শিক্ষাকে লক্ষ্য করে প্রণীত একটি নির্দেশিকা। ইউনেস্কোর এই ম্যানুয়ালে অনুসন্ধানী রিপোর্টিংসহ ১৭টি কোর্সের পাঠক্রম রয়েছে – যা প্রতিটি দেশের প্রয়োজন মেটাতে সক্ষম। ভাষা: ইংরেজি ; ফরাসি ; স্প্যানিশ; রুশ; আরবি; চীনা; নেপালি; পর্তুগিজ; ফার্সি

ইন্টারন্যাশনাল জার্নালিজম এডুকেশন কনসোর্টিয়াম: অনুসন্ধানী সাংবাদিকতার বিভিন্ন কোর্সের বর্ণনা ও পাঠ্যক্রম। (বর্ণমালা অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়, পরে অধ্যাপকের নাম)।

দ্য জেমস ডব্লিউ ফোলে জার্নালিজম সেইফটি গাইড: কলেজ পর্যায়ে যারা সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ পড়ান, তাদের জন্য তৈরি করা হয়েছে পাঁচ সেশনের এই পাঠ্যসূচি। সিরিয়ায় ২০১৪ সালের ১৯ আগস্ট নিহত হন সাংবাদিক জেমস ফোলে। তার ওপর একটি প্রামাণ্যচিত্র নির্মানের অংশ হিসেবে, বিশদ এই কোর্স পরিকল্পনা তৈরি হয়। এখানে আছে বিপজ্জনক পরিস্থিতিতে সাংবাদিকদের কাজের অভিজ্ঞতা নিয়ে লেখা এবং অনেক রেফারেন্স। আলোচনার পাশাপাশি বর্ণনা করা হয়েছে দৃশ্যকল্পও। এই পাঠ্যক্রমে প্রবেশের পাসওয়ার্ড FoleySafety।

বেটার নিউজ: আমেরিকান প্রেস ইনস্টিটিউট পরিচালিত একটি ওয়েবসাইট, যেখানে রয়েছে অনেক রিসোর্স।

এইজেএমসি টাস্ক ফোর্স ফর ব্রিজেস টু দ্য প্রোফেশন্স রিপোর্ট ২০১৭) এসোসিয়েশন ফর এডুকেশন ইন জার্নালিজম অ্যান্ড ম্যাস কমিউনিকেশন-এইজেএমসি থেকে একাডেমিয়া ও সাংবাদিক, উভয়ের সহযোগিতায় তৈরী ২০১৭ সালের একটি প্রতিবেদন।

অবজারভেশন্স অন হাউ উই টিচ ড্রোন জার্নালিজম: আকাশ থেকে সাংবাদিকতা বিষয়ে বইটি লিখেছেন মিসৌরি স্কুল অব জার্নালিজম এর পরিচালক জাড স্লিভকা।

কলাম্বিয়া সাংবাদিকতা স্কুলের অ্যালগরিদম কোর্স: সেখানে অ্যালগরিদম সংক্রান্ত পাঠ দান করেন প্রফেসর জোনাথন স্ট্রে।

হ্যাকিং দ্য কারিকুলাম: হাউ টু টিচ ডেটা রিপোর্টিং ইন জার্নালিজম স্কুলস: ২০১৮ সালে এই রিপোর্ট প্রকাশ করে আমেরিকান প্রেস ইনস্টিটিউট। তারা বলেছে “সাংবাদিকতা স্কুলের জন্য আমাদের প্রধান সুপারিশ হলো ডেটা ও কম্পিউটেশন চর্চাকে সকল শিক্ষার্থীর জন্য মৌলিক দক্ষতা হিসাবে গণ্য করতে হবে।”

দ্য ফিল্ড গাইড টু সিকিউরিটি ট্রেনিং হলো ওপেন নিউজ ও বাজফিড ওপেন ল্যাব পরিচালিত একটি পাঠ্যক্রম। ডেভেলপার, ডিজাইনার ও ডেটা বিশ্লেষকদেরকেউন্মুক্ত ও সহযোগিতামূলক সাংবাদিকতা প্রকল্পে অংশ নিতে সাহায্য করে ওপেন নিউজ। আর বাজফিড ওপেন ল্যাব হলো বাজফিড নিউজের কলা ও প্রযুক্তি বিষয়ক ফেলোশিপ প্রোগ্রাম।

ডিগ ডিপ অ্যান্ড এইম হাই: ২০০০ সালে ইন্টারন্যাশনাল সেন্টার ফর জার্নালিজম অনুসন্ধানী কৌশল শেখানোর জন্য এই নির্দেশিকা প্রকাশ করে। ভাষা: ইংরেজি


অন্যান্য দরকারী গাইড

empoweringএমপাওয়ারিং ইন্ডিপেন্ডেন্ট মিডিয়া: ইউএস এফোর্টস টু ফস্টার আ ফ্রি প্রেস অ্যান্ড ওপেন ইন্টারন্টে অ্যারাউন্ড দ্য ওয়ার্ল্ড: গণমাধ্যম উন্নয়নের একটি সমন্বিত দৃষ্টিভঙ্গি পাওয়া যাবে এই নির্দেশিকায়। কাজে আসবে মূলত ননপ্রফিট মিডিয়া এবং এনজিওদের, বিশেষ করে যারা উন্নয়নশীল ও গণতন্ত্রে উত্তরণের পথে থাকা দেশগুলোতে কাজ করে। এর সাতটি মূল অংশ জুড়ে রয়েছে: অর্থায়ন, ডিজিটাল মিডিয়া, টেকসই, গণমাধ্যম আইন, নিরাপত্তা, শিক্ষা, এবং পর্যবেক্ষণ ও মূল্যায়ন। ভাষা: ইংরেজি, স্প্যানিশ, ফরাসি

সাংবাদিকদের জন্য গুগল অনুসন্ধান টিপস: সংক্ষিপ্ত, সহজ এই নির্দেশিকায় পাবেন কীভাবে গুগল সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করে আরো কার্যকর গবেষণা করা যায়। এটি সংকলন করেছেে Experiseiseinder.com.

জার্নালিস্ট সার্ভাইভাল গাইড: বৈরুত ভিত্তিক সামির কাসির ফাউন্ডেশনের তৈরী করা অ্যানিমেটেড এই নির্দেশিকা প্রাথমিকভাবে যুদ্ধ ও সংঘাতময় এলাকায় কর্মরত সাংবাদিক এবং ত্রাণকর্মীদের সহায়তার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। এখানে ডিজিটাল নিরাপত্তা সম্পর্কিত টিপস এবং নিজের ট্র্যাক লুকোনোর পদ্ধতি সম্পর্কেও ধারনা দেয়া হয়েছে। ভাষা: ইংরেজি, আরবি

লিগ্যাল লিক্স টুলকিট: সাংবাদিকরা কীভাবে সরকারী তথ্যে প্রবেশ করবেন তার একটি নির্দেশিকা। আনুষ্ঠানিক চ্যানেলে সরকারী নথিপত্র পাওয়ার মৌলিক কৌশলগুলো তুলে ধরা হয়েছে ৭৫ পাতার এই বইয়ে। এটি প্রণয়ন করেছে অ্যাক্সেস ইনফো ইউরোপ এবং পূর্ব ইউরোপ রিপোর্টিং নেটওয়ার্ক এস-ওএসটি। ইংরেজি ও ইতালীয়সহ আটটি পূর্ব ইউরোপীয় ভাষায় এটি পাওয়া যায়।

ReportingAtrocitiesToolkitরিপোর্টিং অ্যাট্রোসিটিজ: আ টুলবক্স ফর কাভারিং ভায়োলেন্ট কনফ্লিক্ট অ্যান্ড অ্যাট্রোসিটি: ৬১ পাতার বিশদ এই নির্দেশিকায় সংঘাতের প্রকৃতি, কীভাবে এটি কাভার করা যায় এবং এই ধরনের পরিস্থিতিতে সাংবাদিকের ভূমিকার কী হবে, সেদিকে সজর দেয়া হয়েছে। লিখেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার সাংবাদিক পিটার ডু টোইট এবং প্রকাশ করেছে ইন্টারনিউজ। ভাষা: ইংরেজি

রিপোর্টিং অন করাপশন: আ রিসোর্স টুল ফর গভর্নমেন্টস অ্যান্ড জার্নালিস্টস: মাদক ও অপরাধ বিষয়ক জাতিসংঘ অফিসের ১১৭ পৃষ্ঠার এই গাইড বইতে আমলাতান্ত্রিক আলোচনা এবং জাতিসংঘে হওয়া কথাবার্তাই বেশী। তবে এতে দরকারী কিছু কেস স্টাডি এবং রিসোর্সও পাবেন। অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে সোর্সের সুরক্ষা, তথ্য অধিকার এবং স্ব-নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা।

সীমো সেফটি নেট ম্যানুয়াল: গাইডলাইনস ফর জার্নালিস্টস ইন এক্সট্রাঅর্ডিনারি অর ইমারজেন্সি সিচুয়েশন্স: অস্বাভাবিক বা জরুরী পরিস্থিতিতে সাংবাদিকরা কী করবেন, তা রয়েছে এই নির্দেশিকায়। সাউথ ইস্ট ইউরোপ মিডিয়া অর্গানাইজেশন-সীমো প্রকাশিত নিরাপত্তা ম্যানুয়ালটি এই অঞ্চলের গণমাধ্যম কর্মীদের সুরক্ষার জন্য একটি বৃহত্তর উদ্যোগের অংশ। ভাষা: ইংরেজী এবং অনুরোধের ভিত্তিতে সার্বিয়, ইতালীয়, রোমানিয়, গ্রিক, তুর্কি, বুলগেরিয়, ক্রোয়েশীয় এবং স্লোভেনিয়।

ট্রাজেডিস এন্ড জার্নালিস্টস: সহিংসতা নিয়ে রিপোর্টিংয়ের ভিকটিম এবং প্রতিবেদক উভয়ের সুরক্ষায় কৌশল বলা আছে এই নির্দেশিকায়। ৪০ পাতার এই প্রকাশনায় সাংবাদিক, চিত্রগ্রাহক এবং সম্পাদকদের জন্য ব্যবহারিক টিপস রয়েছে অনেক। ডার্ট সেন্টার ফর জার্নালিজম অ্যান্ড ট্রমা প্রকাশিত গাইডটি লিখেছেন জো হাইট এবং ফ্র্যাঙ্ক স্মিথ। ভাষা: ইংরেজি, স্প্যানিশ, চীনা

ভেরিফিকেশন হ্যান্ডবুক: এটি প্রকাশ করেছে  ইউরোপিয়ান জার্নালিজম সেন্টার। মূলত সাংবাদিক এবং ত্রাণকর্মীদের জন্য একটি সহায়ক রিসোর্স, যা জরুরী পরিস্থিতিতে ইউজার-জেনারেটেড কনটেন্ট (ইউজিসি) ব্যবহারের টুলস এবং ধাপে ধাপে এগুনোর কৌশল বাতলে দেয়। ভাষা: ইংরেজি, পর্তুগীজ, আরবী, এবং স্প্যানিশ

হু’জ রানিং দ্য কোম্পানী: আ গাইড টু রিপোর্টিং অন কর্পোরেট গভর্ন্যান্স:  পরিচালনা পর্ষদ, আর্থিক প্রতিবেদন এবং কোম্পানির পারফরম্যান্স ট্র্যাকিংসহ কর্পোরেট গভর্নেন্স বিষয়ে রিপোর্টিংয়ের একটি প্রাথমিক পাঠ। ইন্টারন্যাশনাল সেন্টার ফর জার্নালিস্ট এবং বিশ্বব্যাংকের ইন্টারন্যাশনাল ফাইন্যান্স কর্পোরেশন মিলে এটি তৈরী করেছে। ভাষা: ইংরেজি; ফরাসি; স্প্যানিশ; বাহাসা ইন্দোনেশিয়া; মঙ্গোলিয়ান; আরবি; রুশ; এবং পর্তুগিজ

সংঘাতে সংবাদ সংগ্রহ ও নিরাপত্তা: সাংবাদিকদের নিরাপত্তা এবং সংঘাতে সংবাদ সংগ্রহ বিষয়ে বিভিন্ন সংস্থার যত নির্দেশিকা আছে, তার একটি সংকলন তৈরি করেছে আইজেনেট। এদের কিছু কিছু আরবি, চীনা, রুশ এবং স্প্যানিশ ভাষায় পাওয়া যায়।